close(x)
 

প্রেমিকের সঙ্গে উধাও মা, কেঁদে কেঁদে অসুস্থ দুই সন্তান

প্রেমিকের সঙ্গে উধাও মা

নাটোরে দুই শিশুসন্তানকে রেখে স্বামীর টাকা ও গহনা নিয়ে প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে রুনা বেগম (৩০) নামের এক গৃহবধূর বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন তার স্বামী।

নাটোর পৌর এলাকার দিয়ারভিটা গ্রামে এমনই ঘটনা ঘটেছে।

রুনা বেগম ওই গ্রামের জহুরুল ইসলামের স্ত্রী ও শহরের দিয়ারভিটা সাইফুল ইসলামের মেয়ে।

বৃহস্পতিবার (১৩ জুলাই) সকালে ভুক্তভোগী পরিবার এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, চার বছর প্রেমের সম্পর্কের পর ১২ বছর আগে রুনা বেগমকে বিয়ে করেন কান্দিভিটুয়া এলাকার মৃত খাদেমুল ইসলামের ছেলে জহুরুল ইসলাম। এ দম্পতির ১০ ও ৬ বছর বয়সী দুটি কন্যাসন্তান রয়েছে। শুক্রবার (৭ জুলাই) দুপুর ১টার দিকে শিশু দুটি দাদির বাড়িতে বেড়াতে যায়। এ সুযোগে কাউকে না জানিয়ে রুনা বেগম নগদ দুই লাখ ২০ হাজার টাকা, সাড়ে ৩ ভরি স্বর্ণালঙ্কার, মোবাইল ফোনসহ প্রায় সাড়ে তিন লাখ টাকার মালামাল নিয়ে পালিয়ে যান। এ ঘটনার ছয়দিন পরও তার খোঁজ পাওয়া যায়নি। পরে থানায় জিডি করেন জহুরুল ইসলাম।

গৃহবধূর স্বামী জহুরুল ইসলাম বলেন, ‘আমার সংসারে ১০ ও ৬ বছরের দুটি কন্যাসন্তান রয়েছে। আমার স্ত্রী তাদের ফেলে রেখে ঘরে থাকা টাকা-পয়সা, গহনাসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়েছে। মায়ের জন্য কান্না করতে করতে দুই মেয়েই অসুস্থ হয়ে পড়েছে। ১০ বছর বয়সী বড় মেয়ে এখন নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি আছে। সম্ভবত ফেসবুকের কোনো প্রেমিকের সঙ্গে আমার স্ত্রী পালিয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, আমার দীর্ঘদিনের জমানো সহায়-সম্বল সব শেষ। আমি এ ঘটনায় দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই।

এ বিষয়ে নাটোর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাছিম আহম্মেদ বলেন, ওই গৃহবধূ পালিয়ে যাওয়ার ঘটনায় তার স্বামী থানায় জিডি করেছেন। বিষয়টি খতিয়ে দেখে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *