close(x)
 

আ’লীগের শান্তি সমাবেশ থেকে ফেরার পথে গুলিস্তানে নিজেদের মধ্যে সংঘর্ষে নিহত ১

রাজধানীর গুলিস্তানের গোলাপ শাহ মাজারের কাছে আজ শুক্রবার সন্ধ্যায় ধারালো অস্ত্র নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে হয়েছে। এতে একজন নিহত ও অন্তত চারজন আহত হয়েছেন। নিহত যুবকের পরিচয় পাওয়া যায়নি। তাঁর বয়স ২৫ বছর হতে পারে।

আহত চার ব্যক্তিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁরা হলেন—আরিফুল ইসলাম (১৮) মো. জোবায়ের (১৮), মো. রনি (৩২) এবং মোবাশ্বের ((২৫)।

পুলিশের মতিঝিল বিভাগের উপকমিশনার মো. হায়াতুল ইসলাম খান আজ রাতে প্রথম আলোকে বলেন, বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ছাত্রলীগের শান্তি সমাবেশ শেষে আজ সন্ধ্যায় এতে অংশ নেওয়া ব্যক্তিরা যার যার গন্তব্যে যাচ্ছিল। এ সময় ধারালো অস্ত্র নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ ও পাল্টাপাল্টি ধাওয়া হয়। একপর্যায়ে পাঁচ যুবক আহত হন। তাঁদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক এক যুবককে মৃত ঘোষণা করেন। তার পরিচয় জানা যায়নি। বাকি চারজন ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাৎক্ষণিকভাবে সংঘর্ষে লিপ্ত হওয়া পক্ষগুলোর নাম বা পরিচয় জানা যায়নি।

কেরানীগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সদস্য সৈকত হাসান প্রথম আলোর কাছে দাবি করেন, বিকেল সাড়ে পাঁচটার দিকে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বক্তৃতা যখন শেষ পর্যায়ে তখন সাবেক খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলামের সমর্থকেরা কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদের সমর্থকদের ওপর ধারালো অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়। এতে উপজেলা চেয়ারম্যানের বেশ কিছু সমর্থক আহত হন।

সৈকত হাসান শাহীন আহমেদের সমর্থক। তিনি আরও বলেন, যারা হতাহত হয়ে হাসপাতালে আছেন, তাদের শনাক্তের চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় আরও কয়েকজন আহত হয়েছেন। তাঁরা রাজধানীর অন্যান্য হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *